কোরআন ও সহীহ সুন্নাহ ভিত্তিক বার্তা প্রচার করাই এই ওয়েবসাইটের মূল উদ্দেশ্য।।

ইলিয়াসী তাবলীগ জামায়াত কর্তৃক প্রকাশিত বইয়ে শিরক-বিদ‘আতের নমুনা

ভূমিকা: বর্তমানে মুসলিম সমাজ শিরক বিদ‘আতের সর্দিতে ভুগছে। সস্তা ফযীলতের ধোঁকায় পড়ে মুসলিম জাতি আজ দিশেহারা। তারা খুঁজে ফিরছে সত্যের সন্ধানে। কোথায় পাওয়া যাবে সঠিক পথের দিশা, কোথায় পাওয়া যাবে সত্যিকারের আদর্শ? কেননা পৃথিবীর সকল মানুষ কোন না কোন আদর্শের সাথে সংযুক্ত। আওয়ামী লীগের আদর্শ শেখ মুজিবুর রহমান, বি.এন.পি’র আদর্শ জিয়াউর রাহমান, কমিনিস্টদের আদর্শ মাওসেতুং-লেলিন, … Read more

তাবলীগ জামআতের অনুসারীদের অবস্থা সম্পর্কে অবগত যুগশ্রেষ্ঠ বিজ্ঞ আলেমগণের ফাতাওয়াসমূহ

(১). শাইখ মুহাম্মাদ ইবনু ইবরাহীম (রাহিমাহুল্লাহ)-কে তাবলীগ জামা‘আত সম্পর্কে জিজ্ঞেস করা হলে তিনি বলেন,‘আমি আপনাদের সমীপে উপস্থাপন করছি যে, উক্ত সংগঠনটির মাঝে কোন কল্যাণ নেই। কেননা ইহা একটি বিদ‘আত ও ভ্রষ্ট সংগঠন। আমরা তাদের বক্তৃতা সংযুক্ত বইগুলো পড়েছি। তাতে পেয়েছি যে, সেই বইগুলো ভ্রান্তি ও বিদ‘আতী বিষয়কে অন্তর্ভুক্ত করছে। তাছাড়াও তাতে কবর পূজা ও শিরকের … Read more

ইলায়াসী তাবলীগ বনাম রাসুল সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম-এর তাবলীগ

(ক) তারা নিজেরা কুরআন বুঝে না অন্যদেরকেও বুঝতে দেয় না। কিন্তু রাসূল ﷺ নিজে কুরআন শিখিয়েছেন এবং তার প্রচারকও ছিলেন। (খ) তাদের দাওয়াতী নিয়ম স্বপ্নে প্রাপ্ত।(মালফূযাতে মাওলানা মুহাম্মাদ ইলিয়াস, পৃঃ ৫১ ) রাসূল ﷺ-এর দাওয়াতী নিয়ম স্বয়ং আল্লাহ প্রদত্ত (সূরা মায়েদা, ৫/ ৬৭)। (গ) তাদের দাওয়াতের মধ্যে সপ্তাহে ১ দিন, মাসে ৩ দিন, বছরে ১ … Read more

ওয়াহদাতুল উজুদ বা সবকিছুতে মহান আল্লাহর উপস্থিতি সম্পর্কে বিস্তারিত

ওয়াহদাতুল উজুদ’ বা সবকিছুতে মহান আল্লাহর উপস্থিতি বলতে কী বুঝায় এবং এটি কি কোন মুসলিমের আক্বীদা বিশ্বাস হতে পারে কি? ▬▬▬▬▬▬▬💠💠💠▬▬▬▬▬▬▬ওয়াহদাতুল উজুদ দুটি আরবি শব্দের সমন্বয়ে সৃষ্টি হয়েছে। আরবি শব্দ ওয়াহেদ (এক) থেকে ওয়াহেদ/ওয়াহদাতুল, যার অর্থ এক হয়ে যাওয়া। আরবি শব্দ উজুদ অর্থ অস্তিত্ব। ওয়াহদাতুল উজুদ এর শাব্দিক অর্থ হলঃ সব কিছুর (সৃষ্টি ও স্রষ্টার) … Read more

আমরা ভাল-মন্দ করবো বলেই কি আল্লাহ তাকদীরে লিখে রেখেছেন

আমরা ভাল-মন্দ করবো বলেই কি আল্লাহ তাগদীরে লিখে রেখেছেন? নাকি আল্লাহ স্বীয় জ্ঞানে স্বাধীনভাবে তাকদ্বীর নির্ধারণ করেছেন। এই মাসয়ালার সঠিক আক্বীদা। ▬▬▬▬▬▬💠💠💠▬▬▬▬▬▬▬▬ ভূমিকা: আমরা ভাল-মন্দ করবো বলেই আল্লাহ লিখে রেখেছেন এই বাক্যের আরেকটি অর্থ হল আমরা দুনিয়াবী জীবনে কি করবো না করবো সেটা আল্লাহর কাছ থেকে চেয়ে নিয়েছি অর্থাৎ আমাদের চাওয়া অনুসারে আল্লাহ তাগদ্বীরে লিখেছেন … Read more

অনেকে দু’আ-মুনাজাতে বলেন আমরা আল্লাহর কুদরতি পায়ে সিজদাহ করি এই বক্তব্য কতটুকু সঠিক

ভূমিকা: ইসলামি শরীয়তের দৃষ্টিতে আমরা আল্লাহর ‘কুদরতি পায়ে’ সিজদাহ করি এই বক্তব্য বা আক্বীদা বিশ্বাস সঠিক নয়। কারন মহান আল্লাহর সম্পর্কে আহলুস সুন্নাহ ওয়াল জামাআতের আক্বীদাহ হল, আল্লাহ তাআলাকে ঐ গুণে গুণান্বিত করা যে গুণে আল্লাহ নিজেকে গুণান্বিত করেছেন অথবা রাসূল (ﷺ) বিশুদ্ধ হাদীসে আল্লাহকে যে গুণে গুণান্বিত করেছেন। এবং তাতে কোনো প্রকার বিকৃতি, পরিবর্তন, … Read more

পাক পাঞ্জাতন টুপি পরিধান সম্পর্কে ভ্রান্তি নিরসন

গত কয়েকদিন ধরে ফেসবুকে পথভ্রষ্ট বক্তাদের পাক পাঞ্জাতন টুপি পরিধান সম্পর্কে ধান্ত বক্তব্য ঘুরপাক খাচ্ছে,এখন অনেকেরই প্রশ্ন পাক পাঞ্জাতন আসলে কি? ▬▬▬▬▬▬▬▬❖▬▬▬▬▬▬▬▬ পাক পাঞ্জাতন একটি ফারসী শব্দ। এর অর্থ হল, পবিত্র পাঁচ ব্যক্তিত্ব। এটি শিয়াদের একটি ভ্রান্ত আক্বীদা। শিয়ারা আহল বাইতের মধ্য থেকে রাসূলুল্লাহ (ﷺ)-এর সাথে আলী, ফাতিমা, হাসান ও হুসাইন (রা)-কে একত্রিত করে পাঁচজনের … Read more

ভবিষ্যতে কি হবে এই ধরনের কথা বলা কতটুকু শরীয়ত সম্মত

২০২৩ সালে দুর্ভিক্ষ দেখা দিবে, ২০২৪ বা ২০২৭ সালে ইমাম মাহাদী আসবেন, অমুক সালে মালহামা যুদ্ধ শুরু হবে, অমুক সালে ঈসা (আলাইহিস সালাম) আসবেন, দাজ্জাল আত্মপ্রকাশ করেছে কিংবা বস্তুবাদী সভ্যতা হল দাজ্জাল, অমুক সালে কেয়ামত হবে ইত্যাদি কথাগুলো বলা কতটুকু শরীয়ত সম্মত আজ আমরা জানার চেষ্টা করবো ইনশাআল্লাহ। ▬▬▬▬▬▬💠💠💠▬▬▬▬▬▬▬ ভূমিকা: প্রিয় পাঠক, দুঃখজনক হলেও সত্য, … Read more

পবিত্র কুরআনে তাওহীদ বিষয়ে নয়জন নবীর ভাষণ

(১) নবী নুহ আলাইহি সালাম:মহান আল্লাহ বলেন, “নিশ্চয় আমি নুহকে তার সম্প্রদায়ের প্রতি পাঠিয়েছি। সে বলল: হে আমার সম্প্রদায়, তোমরা আল্লাহর এবাদত কর। তিনি ব্যতীত তোমাদের কোন উপাস্য নেই। আমি তোমাদের জন্যে একটি মহাদিবসের শাস্তির আশঙ্কা করি। [সুরা আরাফ, ৭:৫৯]। জবাবে তার সম্প্রদায় বলল: মহান আল্লাহ বলেন,“তার সম্প্রদায়ের সর্দাররা বলল: আমরা তোমাকে প্রকাশ্য পথভ্রষ্টতার মাঝে … Read more

বাতিল ফিরকা যাদের আক্বীদা মানহাজে সমস্যা আছেন এমন সকল দল বা ব্যাক্তিদের নিকট থেকে ইলম নেয়া এবং তাদের বই-পুস্তক পড়া থেকে বিরত থাকুন

ভ্রান্ত মতাদর্শের উপর প্রতিষ্ঠিত বিভিন্ন ভ্রান্ত মতাদর্শের উপর প্রতিষ্ঠিত বিভিন্ন বাতিল ফিরকা যাদের আক্বীদা মানহাজে সমস্যা আছে,এমন সকল দল বা ব্যাক্তিদের নিকট থেকে ইলম নেয়া এবং তাদের বই-পুস্তক পড়া থেকে বিরত থাকুন। ▬▬▬▬▬▬▬▬💠💠💠▬▬▬▬▬▬▬▬ যে আদর্শের উপর সাহাবায়ে কিরাম,তাবিঈগণ ও তাবি‘-তাবিঈগণ ছিলেন এবং দ্বীনের সেই ইমামগণ, যাদের ইমাম হওয়ার ব্যাপারে সাক্ষী প্রদান করা হয়েছে, দ্বীনে তাঁদের … Read more

গোশতের টুকরায়, গাছের পাতায়, মাছের গায়ে, রুটিতে, বাচ্চার শরীর ইত্যাদিতে আল্লাহর নাম

গোশতে টুকরা, গাছের পাতা, মাছের গায়ে, রুটিতে, বাচ্চার শরীর ইত্যাদিতে কোনও চিহ্ন যা দেখতে আল্লাহ, মুহাম্মদ বা ইসলামের বিশেষ কোন চিহ্নের মত মনে হলে বিচলিত হওয়ার কিছু নেই। হতে পারে বিষয়টি কাকতালীয়। এটি ইসলামের সত্যতার প্রমাণ বহন করে না। কেননা এমন বহু চিহ্ন দেখা যায়, যা দেখতে খৃষ্টানদের ক্রুশ, হিন্দুদের গণেশ বা অন্যান্য ধর্মের ধর্মীয় … Read more

ওসিলা এর সঠিক অর্থ: বাঁচুন পীরপন্থী ও মাজারপূরজারীদের অপব্যাখ্যা থেকে

আল্লাহ তাআলা বলেন, يٰٓأَيُّهَا الَّذِينَ ءَامَنُوا اتَّقُوا اللَّهَ وَابْتَغُوٓا إِلَيْهِ الْوَسِيلَةَ وَجٰهِدُوا فِى سَبِيلِهِۦ لَعَلَّكُمْ تُفْلِحُونَ “হে ঈমানদাগণ, তোমরা আল্লাহকে ভয় কর, (আনুগত্য ও সন্তোষজনক আমলের মাধ্যমে) তাঁর নৈকট্য লাভের উপায় সন্ধান কর এবং তাঁর পথে জিহাদ কর, যাতে তোমরা সফলতা লাভ করতে পার।” (সূরা মায়িদা: ৩৫) ❑ উক্ত আয়াতের তাফসির: আল্লাহ তাআলা মু’মিনদেরকে নির্দেশ … Read more

চরমোনাই এর পীর মাওলানা এছহাক সাহেবের কয়েকটি মারাত্মক শরিয়া বিরোধী ও ভ্রান্ত কথা

◈ ১) পীর সাহেব লিখেছেনঃ “সত্যই কেয়ামতের অবস্থা এইরূপ (ভয়ানক) হইবে এবং আল্লাহর হুকুমে সেই দিন নিঃসন্দেহে পীরগণ থেকে সাহায্য পাওয়ার আশা করা যায়।” (ভেদে মারেফতঃ ২৫-২৬) ◈ ২) পীর সাহেব আরো লিখেছেন: “কামেল পীর হইলেন আখেরাতের উকীল স্বরূপ।” (ভেদে মারেফতঃ ৬১ পৃঃ) ◈ ৩) পীর সাহেব আরো লিখেছেন: “হযরত থানবী লিখিয়াছেন, জনৈক দরবেশ সাহেবের … Read more

ভণ্ডপীরের মুখোশ উম্মোচন​: সম্মান প্রদর্শনের উদ্দেশ্যে তাজিমি সেজদা করা হারাম

মুহাম্মদ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম এর শরিয়তে মুসলিমদের পরষ্পরের প্রতি সম্মান ও সম্ভাষণের বৈধ রীতি হল, সালাম, মুসাফাহা ও বিশেষ ক্ষেত্রে মুয়ানাকা করা। অনুরূপভাবে সন্তান বা স্নেহাস্পদ কাউকে কিংবা পিতামাতা, শ্বশুর, শাশুড়ি, মুরব্বি, শিক্ষক, আলেম, বুজুর্গ ইত্যাদি ব্যক্তিদের প্রতি শ্রদ্ধা ও সম্মান প্রদর্শনার্থে কপালে বা হাতে চুম্বন করা। এ সব ব্যাপারে কুরআন ও হাদিসে বহু … Read more

কাদিয়ানী মতবাদ এবং খতমে নবুওয়াত

রহমান রহীম আল্লাহ্‌ তায়ালার নামে আরব সহ সমগ্র বিশ্ব তখন গভীর তিমিরে আচ্ছন্ন। সবর্ত্র বিরাজ করছে এক প্রকার গুমোট অস্থিরতা। এমনি এক মূহুর্তে মক্কার আকাশে নতুন এক সুর্যের আবির্ভাব হল। সে সূর্য হল নবুওয়তের সূর্য। আলোকিত হয়ে উঠল মক্কার আকাশ। ঘরে ঘরে পৌঁছতে লাগল আলোক রশ্মী। নবী মুহাম্মাদ (সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম) মানুষকে সে আলোর … Read more

শিয়া ও রাফেযী মুনাফেক গোষ্ঠীর মুখোশ খুলে ফেলতে শুরু হোক অভিযাত্রা

শিয়া ও রাফেযী মুনাফেক গোষ্ঠীর মুখোশ খুলে ফেলতে শুরু হোক অভিযাত্রা: প্রিয় ভাই ও বোনেরা, আসসালামু আলাইকুম ওয়া রাহমাতুল্লাহ আপনাদের কল্যাণকামী হিসেবে বলছি, এখনো যারা শিয়াদের আসল রূপ ও আকিদা-বিশ্বাস সম্পর্কে জানেন না, জানেন না তারা আপনার কত ভয়াবহ দুশমন, কিভাবে তারা ইসলামের গোড়া কেটেছে, কিভাবে যুগে যুগে মুসলিমদের সাথে গাদ্দারি ও মুনাফেকি করেছে, কিভাবে … Read more

আল কুরআনে তাওহীদ বিষয়ে নয়জন নবীর ভাষণ

হযরত নুহ আলাইহি সালাম “নিশ্চয় আমি নুহকে তার সম্প্রদায়ের প্রতি পাঠিয়েছি। সে বলল: হে আমার সম্প্রদায়, তোমরা আল্লাহর এবাদত কর। তিনি ব্যতীত তোমাদের কোন উপাস্য নেই। আমি তোমাদের জন্যে একটি মহাদিবসের শাস্তির আশঙ্কা করি। [সুরা আরাফ,৭:৫৯] জবাবে তার সম্প্রদায় বললঃ “তার সম্প্রদায়ের সর্দাররা বলল: আমরা তোমাকে প্রকাশ্য পথভ্রষ্টতার মাঝে দেখতে পাচ্ছি”। [সুরা আরাফ, ৭:৬০] হযরত হুদ আলাইহি সালাম “আদ … Read more

কালেমা মেনে চলার শর্তাবলী

এক : কালেমা তাইয়েবার অর্থ জানা। অর্থাৎ এ কালেমার দুটো অংশ রয়েছে তা পরিপূর্ণভাবে জানা। সে দুটো অংশ হলো: ১.    কোন হক মা’বুদ নেই ২.    আল্লাহ ছাড়া (অর্থাৎ তিনিই শুধু মা’বুদ) দুই : কালেমা তাইয়েবার উপর বিশ্বাস স্থাপন করা। অর্থাৎ সর্ব-প্রকার সন্দেহ ও সংশয়মুক্ত পরিপূর্ণ বিশ্বাস থাকা। তিন : কালেমার উপর এমন একাগ্রতা ও নিষ্ঠা রাখা, যা সর্বপ্রকার শিরকের পরিপন্থী। চার : কালেমাকে … Read more

বিজয় তো শুধুমাত্র আল্লাহর থেকেই আসে

বিজয় তো শুধুমাত্র আল্লাহর থেকেই আসে আল্লাহ্ সুবহানাহু ওয়া তা’আলা বলেছেন, ‘‘…এবং বিজয় তো শুধুমাত্র আল্লাহর থেকেই আসে।’’ [সূরা আলি ইমরান ৩: ১২৬] এটি এমন একটি আয়াত যেখানে কঠোরতম এক সীমারেখার কথা স্মরণ করানো হয়েছে। এখানে ‘শুধুমাত্র আল্লাহর থেকেই’- কথাটির মাঝে একটি না-বোধক সুর আছে; অর্থাৎ এখানে সীমারেখা হলো যে, বিজয় অন্য কোন কারণে আসবে না; এটি শুধুমাত্র আল্লাহর তরফ থেকে আসবে, যিনি সুবহান (সুমহান), যার কোন শরীক … Read more

জানি না আমার প্রতিপালক আকাশে আছেন নাকি পৃথিবীতে

আল্লাহ মানব জাতিকে সৃষ্টি করেছেন একমাত্র তাঁর ইবাদত করার জন্য (যারিয়াত ৫৬)। আর ইবাদত কবুল হওয়ার অন্যতম দু’টি শর্ত হ’ল- (১) যাবতীয় ইবাদত শুধুমাত্র তাঁর জন্যই নিবেদিত হ’তে হবে। যেমন- সালাত, সিয়াম, হজ্জ-যাকাত, যবেহ, কুরবানী, ভয়-ভীতি, সাহায্য, চাওয়া-পাওয়া ইত্যাদি। (২) রাসুলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম-এর অনুকরণ, অনুসরণ করতে হবে এবং তিনি যেভাবে ইবাদত করতে বলেছেন সেভাবেই তা সম্পাদন করতে হবে। উপরোক্ত শর্ত দু’টির … Read more

আল্লাহই আমাদের জন্য যথেষ্ট

আল  অকীল   এ নামের অর্থ উকীল, কর্মবিধায়ক, তত্ত্বাবধায়ক। মহান আল্লাহ সবকিছুর সবারই উকীল। তিনি বলেন, ‘আল্লাহ সর্বকিছুর স্রষ্টা এবং তিনি সবকিছুর দায়িত্ব গ্রহণ করেন’।[সূরা আয যুমার: ৬২] তিনি বলেন, অন্য কোন উকীল লাগবে না। কারণ তিনিই উকীল হিসাবে যথেষ্ট। ‘আর আল্লাহরই জন্যে সে সবকিছু যা কিছু রয়েছে আসমান সমূহে ও যমীনে। আল্লাহই যথেষ্ট কর্মবিধায়ক’। [সূরা আন নিসা :১৩২]   … Read more

আল্লাহ ছাড়া কেউ গায়েব জানে না এ কথা কতটুকু সত্য

আল্লাহ তায়ালার যে অর্থে عالم الغيب (নিজের থেকে নিজে সব কিছু জানেন) সে অর্থে কোন নবী, রাসূল, অলী, বুযুর্গعالم الغيب নন। তবে আল্লাহ তাআলা যাকে যতটুকু জানান, তিনি ততটুকুই জানেন। আর এভাবে যিনি জানেন তাকে পরিভাষায় عالم الغيب বলা হয় না। যখন নবী-রাসূলগণই عالم الغيب নন, তখন গণক, জ্যোতিষী, টিয়া পাখী ওয়ালা,জ্বীন-শয়তান বা কোন অলী-বুযুর্গ, কোন পীর ফকরি  হুজুর عالم الغيب হওয়ার বা গায়েব জানার প্রশ্নই আসে না। জাহিলী যুগে যেভাবে গণক, জ্যোতিষী এবং এক শ্রেণীর পীর-বুযুর্গ গায়েব … Read more